লঞ্চঘাটে নুরের সমর্থকদের উপর ছাত্রলীগের হামলার অভিযোগ
English

লঞ্চঘাটে নুরের সমর্থকদের উপর ছাত্রলীগের হামলার অভিযোগ

লঞ্চঘাটে নুরের সমর্থকদের উপর ছাত্রলীগের হামলার অভিযোগ

ভিপি নুরুল হক নুর
ভিপি নুরুল হক নুর

পটুয়াখালীর দশমিনায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের সাবেক ভিপি নুরুল হক নুরের সমর্থকদের উপর ছাত্রলীগের হামলার অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার বিকালে উপজেলার সদর ইউনিয়নের হাজিরহাট লঞ্চঘাটে এ ঘটনা ঘটে বলে জানান নুর।

ঘটনার বর্ণনা দিয়ে তিনি জানান, বৃহস্পতিবার তিনি গলাচিপা উপজেলার চরকাজল থেকে জামাল-৬ লঞ্চে ঢাকায় ফিরছিলেন। দশমিনা উপজেলার ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের নেতাকর্মীরা তার সঙ্গে দেখা করার জন্য হাজিরহাট লঞ্চঘাটে অপেক্ষা করছিলেন।

এসময় লঞ্চটি দশমিনার হাজিরহাট ঘাটে পৌঁছালে নুরের সমর্থকরা তার সমর্থনে শ্লোগান দিতে থাকেন। পরে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আরিফ হোসেন সবুজ মহল্লাদারের নেতৃত্বে ছাত্রলীগের নেতাকর্মী ভিপি নুরের সমর্থকদের উপর অতর্কিত হামলা চালায়।

এসময় তার সমর্থকরা এদিক-সেদিক দৌড়ে পালিয়ে যায়। ছাত্রলীগের লোকজন লঞ্চের স্টাফদের সঙ্গে ঝামেলা বাঁধায় বলে অভিযোগ করেন নুর। নুরের দাবি স্থানীয় এমপি এস এম শাহজাদার নির্দেশে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা তার সমর্থকদের উপর হামলা চালিয়েছে। ছাত্রলীগের মধ্যে থাকা তার কিছু সমর্থক তাকে এ তথ্য দিয়েছে।

নুরের এমন অভিযোগের বিষয় উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আরিফ হোসেন সবুজ মহল্লাদার জানান, লঞ্চঘাটে মাস্ক ছাড়া জড়ো না হাওয়ার জন্য তাদের নিষেধ করা হয়েছে। আর এসব বিষয় এমপি মহোদয় কিছুই জানেন না। আর হামলা করার কোন প্রশ্নই আসেনা। যারা ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিল তারা আমার এলাকার ছোটভাই। তাদের উপর হামলা করব কেন?

এ বিষয় স্থানীয় সংসদ সদস্য এস এম শাহজাদা জানান,আমি আমার গ্রামের বাড়িতে। বিষয়টি আমি সন্ধ্যায় শুনেছি। আমি এ বিষয় কিছুই জানি না। আর নুরকে নিয়ে আমার কোন চিন্তা-ভাবনা নাই।

ভিপি নুরের অভিযোগ অস্বীকার করে দশমিনা থানার ওসি জসিম জানান, কোন হামলার ঘটনা ঘটেনি। গণজমায়েত না হওয়ার জন্য ছাত্রলীগ ও কিছু লোকজন তাদের নিষেধ করেছে।

শেয়ার করুন


Advertisement




Ads Manager

All Rights Resrved & Protected