বলিউডসাক্ষাৎকার

আমার রাগ আছে সত্য, তবে মেজাজ নেইঃ সালমান খাঁন

সবারই জানা, বলিউড ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির ইতিহাসের সবচেয়ে রাগী তারকা বোধহয় সালমান খান। ভাইজান যদি একবার রেগে যান তবে প্রলয় শুরু হয়ে যাবে। যে ব্যক্তি তাকে রাগাবে, সে পালানোর পথ খুঁজে পাবেন না। যার কারণে খুব সহজে কেউ তাকে ঘাঁটায় না। সালমানকে রাগিয়ে বা তার সঙ্গে পাঙ্গা নিয়ে বলিউডে ক্যারিয়ার শেষ হয়ে গেছে, এরকম উদাহরণ বহু আছে।

কিন্তু কেন সালমানের এতো রাগ? সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে সালমান খান এ নিয়ে খোলামেলা কথা বলেছেন। সালমান বলেন, আমার রাগ আছে সত্য, কিন্তু এটা খারাপ নয়। আমাকে এই রাগই একজন ভালো মানুষ তৈরি করে। তবে আমার মেজাজ নেই। মেজাজের সঙ্গে রাগকে গুলিয়ে ফেললে চলবে না। কোনো কারণ ছাড়াই অনেকে রাগে ফেটে পড়েন। আমি সেরকম নই। ভেতরে যতটা আগুন থাকা দরকার, ততটা রয়েছে আমার। তাতেই অন্যায়ের প্রতিবাদ করার জোর পাই। কোনো কিছুর পক্ষ-বিপক্ষ নেয়ার জন্য ওই রাগটা মনের ভেতরে থাকা দরকার। তাই আমি রাগটাকে নিজের মধ্যে থাকতে দেই।

সাক্ষাৎকারে সালমান খান আরও জানান, আমার অল্প কয়েকজন কাছের বন্ধু রয়েছে। বহু বছর ধরে তারাই রসদ জুগিয়েছে। নতুন করে আর গাঢ় বন্ধুত্ব হয় না কারো সঙ্গে। সালমান খান মনে করেন, সম্পর্কের শুরুতে নতুন মানুষের সব কিছু ভালো লাগবে। কিন্তু ধীরে ধীরে তার ভুলগুলো চোখে পড়বে। তখন যদি আপনার নতুন বন্ধু সেগুলোর সঙ্গে মানিয়ে নিতে না পারেন, তাহলে সেই বন্ধুত্বের প্রয়োজন নেই।

সালমান খান এই রাগের জন্যই একবার রণবীর কাপুরের গালে চড় মেরেছিলেন। ঘটনাটি ঘটেছিল মুম্বাইয়ের এক অভিজাত পাবে। সকলে ভেবেছিলেন এর পিছনে কারণ হলেন অভিনেত্রী ক্যাটরিনা কাইফ। যদিও আসল কারণ ছিল অন্য কিছু। জানা যায়, সেই সময় বড় তারকা হয়ে ওঠেননি রণবীর। সবে মাত্র কয়েকটি ছবি তার হাতে তখন। কিন্তু সালমানের সঙ্গে সেদিন বাকবিতণ্ডায় জড়ান রণবীর। বেশ কয়েকটি ছবি যেমন ওয়ান্টেড, দাবাং এগুলির সাফল্যের পরে সালমান সেদিন সেই পাবে বন্ধু সঞ্জয় দত্তের সঙ্গে কোয়ালিটি টাইম কাটাচ্ছিলেন।

রণবীরও তার বন্ধুদের সঙ্গে সেখানে উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু হঠাৎ সালমানের সঙ্গে জনসমক্ষে তর্ক লেগে যায় তার। দু’জনেরই মাথা গরম হয়ে ওঠে এবং তর্ক এমন জায়গায় পৌঁছায় যে সালমান রণবীরের গালে চড় বসিয়ে দেন। সেসময় দুই অভিনেতার মধ্যে হাতাহাতি বন্ধ করেন সঞ্জয় দত্ত। তখন অপ্রস্তুত হয়ে সেই পাব থেকে বেরিয়ে যেতে বাধ্য হন রণবীর।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
%d bloggers like this: