২০ দিনের পরিচয়ে বিয়ে করলেন রেলমন্ত্রী, দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে ২০ দিনের পরিচয়ে বিয়ে করলেন রেলমন্ত্রী, দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে

সোমবার, ২১ Jun ২০২১, ০৮:৫০ অপরাহ্ন







২০ দিনের পরিচয়ে বিয়ে করলেন রেলমন্ত্রী, দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে

২০ দিনের পরিচয়ে বিয়ে করলেন রেলমন্ত্রী, দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে

Railway Minister Nurul Islam Sujan is getting married
গত শনিবার রাজধানীর উত্তরায় ঘরোয়া পরিবেশে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে।

দিনভর রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজনের বিযের গুঞ্জন খাটাও ভাবে শোনা গেলেও সত্যতা নিশ্চিত হওয়া যাচ্ছিল না। অনেক প্রশ্নের মুখেও মন্ত্রী নিজেও বিষয়টি কৌশলে এড়িয়ে গেছেন। অবশেষে রেলমন্ত্রী বিয়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পাত্রীর বড় ভাই নিজেই। ৬৫ বছর বয়সী মন্ত্রী মহোদয় বিয়ে করেছেন দিনাজপুরের মেয়ে শাম্মী আকতার-কে । যার বয়স ৪৫ বছর।  পেশায় তিনি আইনজীবী। চলতি মাসের ৫ই জুন উত্তরার একটি রেস্টুরেন্টে অঘোষিতভাবে তিনি বিয়ে করেছেন বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন পাত্রী শাম্মী আকতারের বড় ভাই মো. মিলন হোসেন।

তারা বাসা নিয়েছেন বিরামপুর নতুন বাজারে । অই এলাকার মৃত আব্দুর রহিমের মেয়ে শাম্মী। শাম্মীরা দুই ভাই এক বোন। দুই ভাই বর্তমানে বিরামপুরের অই বাসায় থাকেন। বড় ভাই মিলন হোসেন একজন ইলেকট্রিক ব্যবসায়ী। অপরজন এলাকার  স্থানীয় ব্যবসায়ী। পুর্বে তাদের আগের বাড়ি ছিল পাবনায়।

বোন শাম্মীর বিয়ের বিষয়টি নিশ্চিত করে মিলন বলেন, আমার বোন আইন বিভাগে পড়াশোনা শেষ করে,  হাইকোর্টে সিনিয়রের সঙ্গে প্র্যাকটিস করছেন। আইনি বিষয়ে পরামর্শ নিতে ২০ দিন আগে রেলমন্ত্রীর কাছে যায় আমার বোন। এরপর আমার বোনকে মন্ত্রীর পছন্দ হয়। পারিবারিকভাবে ৫ জুন উত্তরায় আমার বোনের বাসায় তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। এই বিয়েতে বর পক্ষে উপস্থিত ছিলেন, বিরামপুরের বিচারপতি ইজারুল হক ও তার স্ত্রী। কনে পক্ষে ছিলাম আমি ও আমার ভাই উপস্থিত । আনুষ্ঠানিকভাবে খুব ছোট পরিসরে যতটুকু দরকার; সেভাবে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা হয়েছে।“

শাম্মী আকতার বর্তমানে উত্তরায় থাকেন জানিয়ে মিলন বলেন, আমার বোন উত্তরায় থাকছে। ক্যামব্রিয়ান স্কুল অ্যান্ড কলেজের অ্যাডমিনে চাকরি করতো আগে। এরই মধ্যে ল’ পাস করে হাইকোর্টে এক সিনিয়রের সঙ্গে প্র্যাকটিস করছে বর্ত্তমানে। শাম্মী বর্তমানে উত্তরার বাসায় আছে। ডিসেম্বরে স্বামী রেলমন্ত্রীর বাড়িতে যাবেন।

রেলমন্ত্রীর বিয়ে: জানা গেলো পাত্রীর পরিচয়

গত ৫ জুন ঢাকা উত্তরার একটি রেস্টুরেন্টে বিয়ে সম্পন্ন হয়

তিনি আরও বলেন, আমার বোনের –এর আগে কুষ্টিয়ায় বিয়ে হয়েছিল। পারিবারিক কলহর কারণে ২০১১ সালে ডিভোর্স হয়ে যায়। ওই ঘরের একটি মেয়ে রয়েছে। তখন থেকে মেয়েকে নিয়ে ঢাকায় থাকে আমার বোন। ঈদ ও বিভিন্ন অনুষ্ঠানে বিরামপুরের বাড়িতে বেড়াতে আসে। মাঝে মধ্যে আমরাও ওর বাসায় যাই যাই।

শাম্মী আকতার রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজনের পূর্ব পরিচিত বলে জানা যায়। উক্ত বিয়েতে মন্ত্রীর পরিবারের কেউ উপস্থিত ছিল না, পরিবারকে না জানিয়ে শুধুমাত্র বন্ধুদের নিয়ে বিয়ে সেরেছেন মন্ত্রী।

মন্ত্রীর ছেলে-মেয়ে ও পরিবারের ঘনিষ্ট জনরা না জানায় মন্ত্রী ব্যাপারটি এড়িয়ে যাচ্ছেন বলে বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে। বৃহস্পতিবার (১০ জুন) রাত সাড়ে ৯টায় নূরুল ইসলাম সুজনের সঙ্গে সাংবাদিকুদের কথা হয়। বিয়ে করছেন, এমন গুঞ্জন কতটুকু সত্য? এমন প্রশ্ন শুনে মন্ত্রী হেসে দিয়ে বলেন, ‘বিয়ে তো করতেই চাই, কিন্তু পাত্রী খুঁজে পাচ্ছি না।’

মন্ত্রী বলেন, ‘বিয়ে করতে চাচ্ছি এটা ঠিক আছে, কিন্তু ভালো মেয়ে খুঁজে পাচ্ছি না। আপনারা খালি এটাই বলতেছেন, কিন্তু কোনো মেয়ের সন্ধান তো দিচ্ছেন না। অন্তত একটা ভালো মেয়ের সন্ধান দেন। আমি খুঁজতেছি (পাত্রী) কিন্তু পাচ্ছি না।’

শাম্মী আকতারের কথা জিজ্ঞাসা করলে মন্ত্রী বলেন, অনেক মেয়েই দেখা হচ্ছে। শাম্মী আক্তার তার পছন্দের তালিকায় আছে।  তার ব্যাপারে খোঁজ খবর নেওয়া হচ্ছে।

বিয়ে করেছেন কি না? এমন প্রশ্নের উত্তরে মন্ত্রী বলেন, কেবল কথা বার্তা এগোচ্ছে। সময় হলে সবই জানতে পারবেন।

নূরুল ইসলামের ১ম স্ত্রী নিলুফার জাহান ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগের দিন মারা যান। তাদের এক ছেলে ও দুই মেয়ে আছে। তিন সন্তানেরই বিয়ে হয়েছে।

৬৫ বছর বয়সী নূরুল ইসলাম ১৯৫৬ সালের ৫ জানুয়ারি পঞ্চগড়ে জন্ম গ্রহণ করেন। তিনি পঞ্চগড়-২ (বোদা-দেবীগঞ্জ) আসন থেকে ৯ম, ১০ম ও ১১ তম জাতীয় সংসদের সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন। ২০১৮ সালে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তৃতীয়বারের মত সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হওয়ার পর রেলমন্ত্রী হিসেবে সরকারের মন্ত্রিসভায় যুক্ত হন।

শেয়ার করুন




All Rights Resrved & Protected